Welcome to 'Manoranjan Museum'




স্বাগতম

== এই ব্লগে পোস্ট-করা রচনাংশ বা অলংকরণের কপিরাইট আমাদের নয় ==
মনোরঞ্জন ভট্টাচার্য মহাশয়ের রচনার সঙ্গে সকলের পরিচয় ঘটানোর উদ্দেশ্যে এগুলি প্রদর্শিত হচ্ছে কোনও ব্যবসায়িক স্বার্থে নয়
From 'Manoranjan Museum' Blog

মনোরঞ্জন ভট্টাচার্য  (১৯০৩ - ১৯৩৯) ।



জাপানী গোয়েন্দা হুকাকাশি-র জন্মদাতা মনোরঞ্জন ভট্টাচার্য  (১৯০৩ - ১৯৩৯) । 
কিন্তু এ পরিচয় তো আংশিক মাত্র ।
এই অসামান্য সম্পাদকের সৃষ্টিতে বিবিধ বিচিত্র বর্ণে সজ্জিত হয়েছিল 'রামধনু' পত্রিকা ।

কেমন ছিল সেই সব লেখার প্রথম প্রকাশিত বিন্যাস ও অলংকরণ ?

ইন্টারনেট-এ সংরক্ষিত 'রামধনু' থেকে মনোরঞ্জন-সৃষ্টির সচিত্র অংশ বাছাই করে সাজানো হচ্ছে এই 'নোঞ্জ মিজি'
ভাগ করা হয়েছে সাতটি রঙে :
খ) 'নূতন পুরাণ'' পর্যায়ের গল্প
গ) বিবিধ গল্প
চ) অনূদিত উপন্যাস
ছ) ছদ্মনামে রচনা

'নোঞ্জ মিজি'-এ সাধারণভাবে সম্পূর্ণ রচনা নয়, শুধু শিরোনাম / প্রথম পাতাঅলংকরণ রাখা হচ্ছে । 
ক্ষেত্রবিশেষে অন্য কোন গুরুত্বপূর্ণ পৃষ্ঠাও প্রদর্শিত হতে পারে ।

'রামধনু'-তে লেখকের নামহীন বহু রচনাই সম্পাদক মনোরঞ্জন ভট্টাচার্য-র হওয়া সম্ভব ।
 
সঠিকভাবে সনাক্ত করা যাবে না বলে সেগুলিকে এখানে স্থান দেওয়া হল না ।

এছাড়াও থাকছে 'রামধনু' বিষয়ে কিছু প্রাসঙ্গিক তথ্য ।
 
দুর্লভ স্থির চিত্র
লেখক তথা মানুষ মনোরঞ্জন সম্পর্কে মূল্যায়ন বা স্মৃতিচারণ

ডান পাশের 'মেনু'-তে মিলবে 'নোঞ্জ মিজি'-এ প্রদর্শিত পোস্টের তালিকা
একটি ক্লিকেই পৌঁছবেন প্রার্থিত পৃষ্ঠায় ।

আপনাদের মতামত ও মন্তব্যের আশায় রইলাম ।

গভীর গবেষণার গন্ধ নেই । বিশ্লেষণের লেশটুকুও মিলবে না ।
মনোরঞ্জন বাবুর প্রতি এ এক অজ্ঞ অনুরাগীর অক্ষম অর্ঘ ।

7 comments:

  1. এ এক অসাধারন কাজ। ব্লগটির প্রতি পাতায় গভীর নিষ্ঠা ও ভালোবাসার স্বাক্ষর মুদ্রিত। আশা রাখব আর অনেকে উদ্যোগী হলে মনোরঞ্জন বাবুর বিস্মৃতপ্রায় আর বহু রচনা উদ্ধার হবে। হারিয়ে যাওয়া বইগুলির প্রচ্ছদ ও অলংকরণ গুলিও পাওয়া যাবে। যুগান্তরে লেখকের নতুনতর মুল্যায়ন সম্ভব হবে। এই ব্লগরচয়িতা সৌরভ দত্ত নামটির গুরুত্ব সেদিনের পথপ্রদর্শক হিসেবেও উজ্জ্বল থাকবে আশা রাখি।

    ReplyDelete
    Replies
    1. অশেষ ধন্যবাদ ।
      সত্যিই যদি এই অকিঞ্চিৎকর ব্লগ মনোরঞ্জন-অনুরাগীদের কোন কাজে আসে, ভীষণ খুশি হব ।
      আমাদের ব্লগের প্রথম পাঠক ও অন্যতম পরামর্শদাতা সোমনাথ দাশগুপ্ত-কে আবারও কৃতজ্ঞতা জানাই ।

      Delete
  2. আমার কাছে "শিশু বিচিত্রা" বইয়ের দুটি সংকলন আছে , তাতে মনোরঞ্জন বাবুর লেখা পাওয়া যায় , স্ক্যান করে পাঠাচ্ছি ।

    ReplyDelete
    Replies
    1. বাঃ ! খুব ভাল হয় তাহলে ।

      Delete
  3. যখন আনাড়ি আঙুলে সাজাচ্ছিলাম এই 'মনোরঞ্জন মিউজিয়ম' ব্লগ
    বারবার মনে হত, এ এক অজ্ঞ অনুরাগীর অক্ষম অর্ঘ ।
    কোন প্রকৃত গবেষক কেন এগিয়ে আসছেন না প্রায় ভুলে-যাওয়া এই লেখককে নিয়ে কাজ করতে ?

    অবশেষে ...

    ২০১৬-র কলকাতা বইমেলায় বেরিয়েছে তেমনই এক গবেষণা-গ্রন্থ ।
    'ছোটদের মনোরঞ্জন ভট্টাচার্য ও তাঁর রামধনু পত্রিকা'
    লেখক ।। শ্রী পার্থ সেনগুপ্ত
    প্রকাশক ।। পুস্তক বিপণি

    মনোরঞ্জন-অনুরাগীদের খবরটা দিলাম ।
    সেই আনন্দে 'মনোরঞ্জন মিউজিয়ম'-কে ভুলে যাবেন না যেন ।

    ReplyDelete
  4. Eta Ekta blog ja bar bar banglar sishu o kishore sahityer ujjwal atit k mone korai

    ReplyDelete
    Replies
    1. তোমার কাছে এই ব্লগ কৃতজ্ঞ, অর্ণব ।
      যাঁরা স্বতঃপ্রণোদিত হয়ে উৎসাহ এবং তথ্য-ছবি-বই জুগিয়েছিলেন, তুমি তাঁদের তালিকায় অগ্রগণ্য ।
      অর্ণব দাস ছাড়া 'মনোরঞ্জন মিউজিয়ম' তৈরির স্বপ্ন অসম্পূর্ণ থাকত ।

      Delete